1. momin02@gmail.com : MD Momin : MD Momin
  2. admin@upokulbarta.com : upokulbarta : Md Shohel
নোটিশঃ
উপকূলের  জনপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল উপকূল বার্তায় আপনাকে স্বাগতম

রাজশাহী মোহনপুর ইউপি নির্বাচন সরব আওয়ামীলীগ ও নিরব বিএনপি

  • প্রকাশিত : বুধবার, ১৩ অক্টোবর, ২০২১
  • ১৭ বার পঠিত

রাজশাহী জেলায় আসন্ন ৩য় ধাপের ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনের তফশিল ঘোষনা আগামীকাল বৃহস্পতিবার ঘোষনার কথা রয়েছে। ইউপি নির্বাচনকে কেন্দ্র করে চেয়ারম্যান পদে আগ্রহের শেষ নেই রাজশাহীর মোহনপুর উপজেলার ধুরইল ইউনিয়নের তৃণমূলে। চায়ের টেবিল থেকে রাজনীতির টেবিল পর্যন্ত ধুরইল ইউনিয়নের সর্বত্র চলছে আগামী ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন এবং সম্ভাব্য চেয়ারম্যান প্রার্থীদের নিয়ে আলোচনা। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকসহ দলীয় মনোনয়ন ও সমর্থন চেয়ে ব্যানার ফেস্টুন সাটিয়ে নিজের পার্থিতা জানান দিচ্ছেন এখানকার দলীয় পার্থীরা। ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন দলীয় প্রতীকে হওয়ায় চেয়ারম্যান পদে প্রার্থীরা আটঘাট বেঁধেই মাঠে নেমেছেন তবে এবার বিএনপি দলীয় প্রার্থী দিচ্ছেন না বলে থাকছেনা ধানের শীষ প্রতীক। সে কারণে এলাকায় শুরু হয়েছে আওয়ামী লীগ থেকে মনোনয়ন প্রত্যাশীদের দৌড়ঝাঁপ।অপরদিকে বিএনপি মনোনীত ধানের শীষ প্রতীক নিয়ে বিজয়ী বর্তমান চেয়ারম্যান প্রভাষক কাজিম উদ্দিন ১৯ বছর ধরে ইউনিয়নের প্রতিটি জায়গায় নিয়মিত ঘুরে মানুষের ভাল মন্দের খোঁজ খবর রেখেছেন চলেছেন।

এবার নির্বাচন দৌড়ে নবীন-প্রবীণ মিলে ৮ জন প্রার্থী চষে বেড়াচ্ছেন ইউনিয়নের বিভিন্ন মোড় ও ভোটারদের বাড়ি। তাদের লক্ষ্য একটাই যে করেই হোক দলীয় মনোনয়ন ও সমর্থন চাই। ইতিমধ্যে আওয়ামী লীগ থেকে ৭ মনোনয়ন প্রত্যাশীরা এলাকায় গণসংযোগে ব্যস্ত সময় পার করছেন। চেয়ারম্যান পদে আওয়ামী লীগ থেকে সম্ভাব্য প্রার্থীরা হলেন, মোহনপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা কমিটির সদস্য সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান খন্দকার মো.রবিউল ইসলাম, জেলা যুবলীগের সহ-সভাপতি আনোয়ার হোসেন, উপজেলা কৃষকলীগের আইন বিষয়ক সম্পাদক এ্যাড.জাহিরুল ইসলাম, ধুরইল ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক দেলোয়ার হোসেন, মোহনপুর উপজেলা যুবলীগের সহ-সভাপতি প্রভাষক আক্কাছ আলী, ইউপি যুবলীগ সভাপতি মো.আশরাফুল আলম, বঙ্গবন্ধু সৈনিক লীগ রাজশাহী জেলা শাখার সাবেক সভাপতি জিমি কাটার রনি।

গত ২০১৬ সালের ধুরইল ইউপি নির্বাচনে আওয়ামীলীগ হতে নৌকা প্রতীকের মনোনয়ন চেয়েছিলেন খন্দকার মো.রবিউল ইসলাম, আনোয়ার হোসেন, উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মুরাদুল ইসলাম মুরাদ, দেলোয়ার হোসেন। দলীয় হাই কমান্ড খন্দকার মো. রবিউল ইসলামকে নৌকা প্রতীকের মনোনয়ন চুড়ান্ত করে। বিগত ধুরইল ইউপি নির্বাচনে ৬৭ ভোটের ব্যবধানে বিএনপি মনোনীত ধানের শীষ প্রতীকের প্রার্থী প্রভাষক কাজিম উদ্দিনের কাছে তুমুল লড়াই শেষে পরাজিত হন বর্তমান সরকারের আওয়ামী লীগ মনোনীত নৌকার মাঝি খন্দকার মো.রবিউল ইসলাম। গত দু’বারের সেই পরাজয়কে এবার শক্তিতে রুপান্তর করে নৌকা প্রতীককে বিজয়ী করতে আওয়ামীলীগের দলীয় হাই কমান্ড এবার তৃনমূলে জনপ্রিয় শক্তিশালী পরিচ্ছন্ন ভাবমূর্তি আছে এমন প্রার্থীকে মনোনয়ন দিবেন ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ বর্ধিত সভার আয়োজন করেছে আগামীকাল বৃহস্পতিবার । এ ইউনিয়নের ৯ ওয়ার্ডে ৬২টি ভোট কক্ষে ভোটার সংখ্যা ২১ হাজার ৫’শ ৩৮ জন। পুরুষ ভোটার সংখ্যা ১০ হাজার ৮’শ ১৬ জন, মহিলা ভোটার সংখ্যা ১০ হাজার ৭’শ ২২ জন। অনুসন্ধানে জানা গেছে, ধুরইল ইউনিয়ন পরিষদের প্রথম নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয় ১৯৭৪ সালে।

প্রথম ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন খন্দকার শামসুদ্দিন আহম্মদ। ১৯৭৭ সালে ধুরইল ইউনিয়ন বিএনপির প্রতিষ্ঠা আব্দুল মজিদ মোল্লা চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন। ১৯৮৪ সালে জাতীয়পার্টি থেকে নির্বাচিত হন কামাল উদ্দিন মন্ডল, তিনি দ্বিতীয়বার আবারো ১৯৮৮ সালে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন। এরপর ১৯৯২ সালে আব্দুল মজিদ মোল্লা বিএনপি হতে আবারো চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন। ১৯৯৮ সাল ও ২০০৩ সালে আওয়ামীলীগ হতে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন খন্দকার মো. রবিউল ইসলাম। ২০১১ সালে বিএনপি মনোনীত ধানের শীষ প্রতীকে নির্বাচিত হন প্রভাষক কাজিম উদ্দিন। এরপর তিনি পুনরায় ২০১৬ সালে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়ে অদ্যবধি পর্যন্ত চেয়ারম্যানের দায়িত্ব পালন করে আসছেন।

শেয়ার করুন

এই বিভাগের আরো খবর
© All rights reserved www.upokulbarta.com © 2021
Customized BY NewsTheme